মোবাইল নাম্বার গুপন রেখে কথার বলার উপায়! brilliant apps

অনেক সময় আমরা আমাদের বন্ধুদের সাথে মজা করা বা অন্য কোনো বিশেষ প্রোয়জনে নিজের নাম্বার গুপন রেখে কথার বলতে হয়, আর এই কাজটি করার জন্য বিভিন্ন অ্যাপসের সাহায্য নিতে হয়, গুগল প্লেষ্টোরে অসংখ্য অ্যাপ থাকলেও আইপি কলিং সুবিধা প্রধানের ক্ষেত্রে সব থেকে বেশি সুবিধা প্রদানকারী দেশের শীর্ষ অবস্থানে যে অ্যাপটি রয়েছে তার নাম হলো ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপস এই অ্যাপটি আপনারা অ্যান্ড্রয়েড এবং আইফোন উভয় প্লাটফর্মে ব্যবহার করতে পারবেন। এই টিউটোরিয়ালে brilliant  apps ডাউনলোড করা রেজিষ্ট্রেশন করা রিচার্জ করার নিয়ম, সহ আরো কিছু সুবিধা ও ফিচার সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরা হয়েছে।



brilliant app এর সুবিধা ও ফিচার

এটি একটি বাংলাদেশ ভিত্তিক সারা দেশব্যাপী ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার, একটি আদর্শ মেসেজিং এবং কলিং অ্যাপস হতে হলে যে সকল ফিচারস গুলো প্রয়োজন তার সব গুলো রয়েছে এই অ্যাপ এর মধ্যে। এই অ্যাপটি দিয়ে মোবাইল ডাটা (mobile data) এবং ওয়াইফাই (WiFi) ব্যবহার করে ফ্রি কলিং ও মেসেজিং উপভোগ করা যাবে।


ব্রিলিয়্যান্ট এ রেজিষ্ট্রেশন করার পর তারা আপনাকে ১১ ডিজিটের একটি ব্রিলিয়ান্ট নাম্বার, প্রদান করবে যেটা শুরু হবে ০৯৬৩৮ দিয়ে এবং আপনি যখন কাউকে কল করবেন তখন সে আপনার নিজের মোবাইল নাম্বারের পরিবর্তে ব্রিলিয়ান্ট নাম্বারটি দেখতে পারবেন যা দেখতে অনেকটাই বিদেশি নাম্বারের মতো। 


ব্রিলিয়ান্ট থেকে ব্রিলিয়ান্ট নাম্বারে কল করা যাবে একদম বিনামূল্যে (ইন্টারনেট সংযোগ লাগবে) আর যেকোনো লোকাল নাম্বারে কথা বলা যাবে মাত্র ৩০ পয়সা প্রতি মিনিটে।


নিজের মোবাইল নাম্বার গুপন রেখে কথা বলার পাশাপাশি মেসেজিং অডিও, ভিডিও, লোকেশন, ফাইলস, ভয়েস, ফটো সব কিছু পাঠাতে পারবেন খুব সহজে এবং আপনি চাইলে কয়েকজন একসাথে মিলে গ্রুপ চ্যাটিংও করতে পারবেন।


ডাউনলোড ও রেজিষ্ট্রেশন করার উপায়

আপনি যদি একজন অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারী হয়ে থাকেন তাহলে গুগল প্লেষ্টোরে গিয়ে brilliant লিখে সার্চ করলেই পেয়ে যাবেন, অথবা সরাসরি এখান থেকে ডাউনলোড করে নিন, আর যদি 

আইফোন ব্যবহারকারী হয়ে থাকেন তাহলে এখান থেকে ডাউনলোড করে নিন।


একটা সময় ছিলো যখন ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপে রেজিষ্ট্রেশন করার জন্য ভ্যালিড এনআইডি কার্ড (NID card) অর্থাৎ জাতীয় পরিচয়পত্র লাগতো, তবে এখন বর্তমানে শুধু মোবাইল নাম্বার দিয়েই রেজিষ্ট্রেশন করা যায়।


অ্যাপটি গুগল প্লে স্টোর বা আইওএস অ্যাপ স্টোর থেকে ডাউনলোড করে ইনস্টাল করে ওপেন করলে Your Phone লেখা একটি পেজ দেখতে পাবেন। এর নিচে খালি বক্সে আপনার মোবাইল নম্বার দিয়ে Confirm বাটুনে ক্লিক করুন।


প্রদত্ত মোবাইল নম্বারে একটি কোড আসবে সেটা আপনি অ্যাপের Enter Code বক্সে বসিয়ে দিন এবং সকল অপশন গুলো Allow করে দিলেই আপনার একাউন্ট খোলা হয়ে যাবে।


রিচার্জ করার নিয়ম

আপনরা যখন এক ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপ থেকে অন্য ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপে কথা বলবেন তখন কোনো টাকা খরচ হবে না। কিন্ত যখন ব্রিলিয়ান্ট থেকে মোবাইল নাম্বারে কথা বলবেন তখন অবশ্যই টাকা রিচার্জ এর প্রয়োজন হবে। ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপে টাকা রিচার্জ করার জন্য আপনাকে Add Balance অপশনে গিয়ে পেমেন্ট করতে হবে। আপনি বিকাশ, রকেট, নগদ সহ ব্যাংক কার্ড গুলো দিয়ে brilliant টাকা রিচার্জ করতে পারবেন। ব্রিলিয়ান্ট কানেক্ট রিচার্জ করার সময় আপনাকে সর্বনিম্ন ২০ টাকা রিচার্জ করতে হবে।


ব্রিলিয়ান্ট হেপ্ললাইন

ব্রিলিয়ান্ট অ্যাপ সম্পর্কে যেকোনো সমস্যা বা পরামর্শের জন্য যোগাযোগ করতে পারবেন তাদের কাস্টমার কেয়ারে সাপোর্টে। মোবাইলঃ 01709818259 অথবা ইমেইল করতেন পারবেন তাদের অফিসিয়াল ইমেইলে support@brilliant.com.bd


Post a Comment

0 Comments